চলতি মাসেই লেনদেন চালুর প্রস্তুতি নিচ্ছে ডিএসই

Share to Social network.
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আগামী ৩১ মে থেকে শেয়ারবাজারে লেনদেন চালুর প্রস্তুতি নিচ্ছে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)। এ জন্য ডিএসইর কর্মকর্তা-কর্মচারীদেরকে ৩১ মে অফিসে যোগদান করার জন্য চিঠি দেয়া হয়েছে।

ডিএসইর চেয়ারম্যানের নির্দেশে রোববার (২৪ মে) মানব সম্পদ বিভাগ থেকে সকল বিভাগের প্রধানদের কাছে এ চিঠি পাঠানো হয়েছে বলে ডিএসইর সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।

এদিকে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) নতুন চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম জাগো নিউজকে জানিয়েছেন, ব্যাংক খোলা থাকলে শেয়ারবাজারে লেনদেন চালু করে দেয়া হবে।

তিনি বলেন, ‘শেয়ারবাজারে লেনদেন বন্ধ থাকায় একটি ভুল বার্তা যাচ্ছে। ব্যাংক খোলা থাকলে আমরা শেয়ারবাজারে লেনদেন চালু করে দেব। সেক্ষেত্রে বর্তমানে শেয়ারের যে ফ্লোর প্রাইস নির্ধারণ করা হয়েছে তা বলবৎ থাকবে। বাজার স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত এটা থাকবে।’

রোববার বিভাগীয় প্রধানদের পাঠানো ডিএসইর চিঠিতে বলা হয়েছে, ‘ডিএসইর চেয়ারম্যান আগামী ৩১ মে থেকে লেনদেন চালুর জন্য প্রস্তুতি নিতে নির্দেশনা দিয়েছেন। ফলে আগামী ৩১ মে থেকে ডিএসইর নিয়মিত কার্যক্রম শুরু হবে। এ লক্ষ্যে সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীকে ৩১ মে অফিসে যোগদানের অনুরোধ করা হয়েছে। যা বিভাগ প্রধানদেরকে তার বিভাগের সবাইকে জানানোর জন্য বলা হয়েছে।’

মহামারি করোনাভাইরাস পরিস্থিতি মোকাবিলার অংশ হিসেবে সরকারের সাধারণ ছুটির সঙ্গে তাল মিলিয়ে শেয়ারবাজারও ২ মাস ধরে বন্ধ রয়েছে। যা শুরু হয়েছে গত ২৬ মার্চ থেকে। তবে চলমান মহামারিতে পৃথিবীর অন্যান্য দেশের শেয়ারবাজার চালু রয়েছে। তারপরও বাংলাদেশের শেয়ারবাজার এই দীর্ঘ সময় বন্ধ থাকায় সমালোচনা উঠেছে। ফলে স্টেকহোল্ডার বিনিয়োগকারীসহ সকল পক্ষ থেকে শেয়ারবাজারে লেনদেন চালু করার দাবি উঠেছে।

করোনাভাইরাসের কারণে সরকার সর্বপ্রথম গত ২৬ মার্চ থেকে ৪ এপ্রিল পর্যন্ত সাধারণ ছুটি ঘোষণা করে। এরপর প্রথম দফায় ৭দিন সাধারণ ছুটি বাড়িয়ে ৫ এপ্রিল থেকে ১১ এপ্রিল পর্যন্ত করা হয় এবং দ্বিতীয় দফায় ৩দিন ছুটি বাড়িয়ে ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত করে। এরপরে ১১ দিন বাড়িয়ে সাধারণ ছুটি ২৫ এপ্রিল পর্যন্ত, আরও ১০দিন বাড়িয়ে ৫ মে পর্যন্ত এই ছুটি বর্ধিত করা হয়। যা পঞ্চম দফায় ১১দিন বাড়িয়ে ১৬ মে পর্যন্ত করা হয়েছিল। আর সর্বশেষ ১৪ দিন ছুটি বাড়িয়ে ৩০ মে পর্যন্ত করা হয়েছে। একইসঙ্গে ধাপে ধাপে শেয়ারবাজারও বন্ধ ঘোষণা করেছে ডিএসই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *