Share to Social network.
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

মুলাদী প্রতিনিধিঃ

মুলাদী উপজেলার নাজিরপুর ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের কাচিচর দাখিলি মাদ্রাসার সামনে ধান খেতের মধ্যে বালিতে চাপা দিয়ে রেখে যায় ৩নং ওয়ার্ডের সাহেবেরচর গ্রামের মোঃ লুৎফর রহমান তোতা সিকদার এর পুত্র ইমন সিকদার(১৮)কে। হাসপাতাল সূত্রে ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায় আজ সন্ধ্যা আনুমানিক ৬টায় ওয়ার্ডে সাহেবের চর রামারপোল সংযোগ সেতুর উপর থেকে ইমন সিকদার কে জোড় পূর্বক ২নং ওয়ার্ডের সাহেবেরচর গ্রামের রফিকু ভুইয়ার পুত্র সুলাইমান (১৮)ও একই গ্রামের সাইলু ভুইয়ার পুত্র ফেরদৌস (১৮) সহ অজ্ঞাত নামা ৪/৫ জন সন্ত্রাসীরা তুলে নিয়ে মারধর করে মৃত্য ভেবে ধান খেতের মধ্যে রাখার সময় স্থানীয় এলাকাবাসী ঘটনাটি টের পেলে ইমন সিকদারকে বালি চাপা দিয়ে রাখে। ইমন সিকদার এর পিতা মোঃ লুৎফর রহমান তোতা সিকদার বলেন আমার ছেলে ঢাকায় থাকে, যে সন্ধ্যায় ব্রীজে ঘুরতে আসলে সন্ত্রাসীরা তাকে জোড় পূর্বক তুলে নিয়ে যায়। এখন পর্যন্ত ইমন সিকদারের জ্ঞান ফিরেনি। মুলাদী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এর ডাঃ নাইমা সুলতানা বলেন রোগীর জ্ঞান এখনও ফিরেনি তবে চিকিৎসা চলছে। এ বিষয়ে মামলার প্রস্তুুতি নিচ্ছেন ইমন সিকদার এর পিতার মোঃ লুৎফর রহমান তোতা সিকদার।