এবার দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে খেলতে চান পিটারসেন

0
47

আনুষ্ঠানিকভাবে অবসরের ঘোষণাটা এখনো দেননি কেভিন পিটারসেন। কিন্তু ৩৭ বছর বয়সী এই ক্রিকেটার যে আবারও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরতে পারেন, এমন আশা হয়তো কারোরই নেই। তবে খোদ পিটারসেন কিন্তু এখনো আশা ছাড়েননি। ইংল্যান্ডের হয়ে যে আর খেলতে পারবেন না, সেটা খুব ভালোমতো জানেন বলেই এখন পিটারসেন স্বপ্ন দেখছেন দক্ষিণ আফ্রিকার জার্সি গায়ে মাঠে নামার।

১৯৮০ সালে দক্ষিণ আফ্রিকাতেই জন্ম হয়েছিল পিটারসেনের। কিন্তু পরে ইংল্যান্ডে চলে আসায় সেখানেই ক্রিকেট ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান। ২০০৪ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত সফল একটা সময়ই কাটিয়েছিলেন। কিন্তু ২০১৩-১৪ মৌসুমের অ্যাশেজ সিরিজের পর তাঁকে দল থেকে বাদ দেয় ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড। তার পর থেকে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বাইরেই আছেন তিনি।

ইংল্যান্ডের হয়ে আর খেলার কোনো সম্ভাবনা নেই, এটা বুঝতে পেরে পিটারসেন তাই এখন ঝুঁকছেন জন্মস্থান দক্ষিণ আফ্রিকার দিকে। ২০১৯ সালের বিশ্বকাপে খেলার সম্ভাবনাও উড়িয়ে দিচ্ছেন না তিনি, ‘আমরা আরো দুই বছর পরের কথা ভাবছি। কে জানে, আমি খেলতে পারব কি না। আমি আগামী দুই বছর দক্ষিণ আফ্রিকায় অনেক ক্রিকেট খেলব। ফলে দেখা যাক, বিশ্বকাপে খেলতে পারি কি না।’

ইংল্যান্ডের জাতীয় দলে ফিরতে না পারলেও পিটারসেন ফিরেছেন ঘরোয়া ক্রিকেটে। ন্যাটওয়েস্ট টি-টোয়েন্টি ব্লাস্ট দিয়ে শুরুটাও করেছেন দারুণভাবে। সারের জার্সি গায়ে খেলেছেন ৩৫ বলে ৫২ রানের ঝড়ো ইনিংস। এখনো যে ফুরিয়ে যাননি, এটা বেশ ভালোমতোই বুঝিয়ে দিয়েছেন তিনি।

LEAVE A REPLY