বাংলাদেশের সঙ্গে যোগাযোগের উন্নয়নকে গুরুত্ব দিচ্ছে ভারত

0
33

আগরতলায় উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় নিতি আয়োগের প্রথম বৈঠক। ১০ এপ্রিল, ২০১৮। ছবি: প্রথম আলো।আগরতলায় উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় নিতি আয়োগের প্রথম বৈঠক। ১০ এপ্রিল, ২০১৮। ছবি: প্রথম আলো।বাংলাদেশের সঙ্গে যোগাযোগব্যবস্থার উন্নয়নকে গুরুত্ব দিচ্ছে ভারত সরকার। বলা হয়েছে, উত্তর-পূর্ব ভারতকে ‘হিরা’ দিয়ে সাজাতে এ উন্নয়নের প্রয়োজন। গতকাল মঙ্গলবার ত্রিপুরার রাজধানী আগরতলায় উত্তর-পূর্বাঞ্চলের আট রাজ্য নিয়ে গঠিত নিতি ফোরামের বৈঠকে এ কথা বলা হয়।

ত্রিপুরায় ভোট প্রচারে এসে হিরার ব্যাখ্যা দিয়েছিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। বলেছিলেন, ‘হিরা হলো হাইওয়েজ, রেলওয়েজ আর এয়ারওয়েজ। অর্থাৎ যোগাযোগব্যবস্থার পরিকাঠামোর উন্নয়নই সবচেয়ে জরুরি উত্তর-পূর্ব ভারতের।’ এবার তাঁর সরকারেরই নিতি আয়োগের শীর্ষ কর্তারা গতকাল কানেকটিভিটির উন্নয়নকেই গুরুত্ব দেন।

ভারতীয় নিতি আয়োগের ডেপুটি চেয়ারপারসন রাজীব কুমার সাংবাদিকদের বলেন, ‘আঞ্চলিক যোগাযোগের ক্ষেত্রে হিরাকে গুরুত্ব দেওয়া হবে। পাশাপাশি বাংলাদেশসহ প্রতিবেশী এশিয়ান দেশগুলোর সঙ্গেও যোগাযোগব্যবস্থার উন্নতি করা হবে।’

ত্রিপুরার সাব্রুমের সঙ্গে বাংলাদেশের চট্টগ্রামের যোগাযোগের সেতু নির্মাণ প্রকল্পের পাশাপাশি আখাউড়া-আগরতলা রেলপথ নির্মাণের কথাও উল্লেখ করেন তিনি। বৈঠকে উপস্থিত ভারতের প্রধানমন্ত্রী দপ্তরের মন্ত্রী জিতেন্দ্র সিংয়ের দাবি, বাংলাদেশের চট্টগ্রামকে কেন্দ্র করে ত্রিপুরা উত্তর-পূর্ব ভারতের প্রবেশদ্বার হতে চলেছে।

উত্তর-পূর্ব ভারতের আট রাজ্যকে নিয়ে গঠিত নিতি ফোরামের প্রথম বৈঠক এদিন আগরতলায় হয়। বৈঠকে ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব ছাড়াও মেঘালয় ও নাগাল্যান্ডের মুখ্যমন্ত্রী, অরুণাচল প্রদেশের উপমুখ্যমন্ত্রী যোগ দেন। অন্য রাজ্যগুলোর মন্ত্রীরা ছাড়াও উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন। তাঁরা বাংলাদেশের সঙ্গে রেল, সড়ক, পানি ও বিমান যোগাযোগ বৃদ্ধির ওপর গুরুত্ব দেন।

LEAVE A REPLY