টিআইবির জরিপ: সবচেয়ে দুর্নীতিগ্রস্ত আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী সংস্থা সবচেয়ে বেশি ৭২.৫ শতাংশ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী সংস্থায়, এরপরই রয়েছে পাসপোর্ট অফিস

0
17

দেশের সবচেয়ে দুর্নীতিগ্রস্ত খাত আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী সংস্থা। ২০১৭ সালে সার্বিকভাবে ৬৬.৫ শতাংশ মানুষ সেবাখাতগুলোতে দুর্নীতির শিকার হয়েছেন।

সবচেয়ে বেশি ৭২.৫ শতাংশ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী সংস্থায়। এরপরই রয়েছে- পাসপোর্ট অফিস ৬৭.৩ শতাংশ এবং বিআরটিএ-তে ৬৫.৪ শতাংশ।

ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের (টিআইবি) এক জরিপে এসব তথ্য উঠে এসেছে।


টিআইবির খানা জরিপের সর্বাধিক দুর্নীতিগ্রস্ত খাতসমূহ।

৩০ আগস্ট, বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় রাজধানীর ধানমন্ডির মাইডাস ভবনে টিআইবির কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ জরিপ তুলে ধরা হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন টিআইবির চেয়ারপারসন সুলতানা কামাল ও নির্বাহী পরিচালক ইফতেখারুজ্জামান।

জরিপে বলা হয়, ২০১৭ সালে টিআইবি শিক্ষা, স্বাস্থ্য, স্থানীয় সরকার প্রশাসন, ভূমি সেবা, কৃষি, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী সংস্থা, বিচারিক সেবা, বিদ্যুৎ, ব্যাকিং, বিআটিএ, কর ও শুল্ক, এনজিও, পাসপোর্ট, বীমা, গ্যাস সেবা খাতে জরিপ করে টিআইবি।


টিআইবির খানা জরিপের বিভিন্ন খাতে ঘুষের পরিমাণসমূহ।

জরিপের ফলাফল অনুযায়ী, সর্বোচ্চ দুর্নীতিগ্রস্ত সেবা খাত আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী সংস্থা, দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে পাসপোর্ট অফিস, তৃতীয় স্থানে বিআরটিএ এবং চতুর্থ স্থানে রয়েছে বিচারিক ব্যবস্থা।

২০১৭ সালে এ জরিপ পরিচালিত এ জরিপে আরও বলা হয়, দেশের ৮৯ শতাংশ মানুষ মনে করেন, ঘুষ না দিলে কোনো খাতে সেবা মেলে না। ২০১৬-১৭ অর্থবছরে প্রাক্কলিত ঘুষের পরিমাণ ছিল ১০ হাজার ৬৮৮ কোটি ৯০ লাখ টাকা। এটি মোট দেশজ উৎপাদনের (জিডিপি) শূন্য দশমিক ৫ শতাংশ এবং জাতীয় বাজেটের ৩ দশমিক ৪ শতাংশ

ref- priyo.com

LEAVE A REPLY