‘দেখাতে চেয়েছিলাম আড়াইশো বল খেলেও কেমন বল করতে পারি’

0
178

স্পোর্টস ডেস্কওয়েস্ট ইন্ডিজের মাটিতে ভারতকে প্রথম বার টেস্টে ইনিংসে জিতিয়ে বিসিসিআই ওয়েবসাইটে যা বললেন ম্যাচের নায়ক রবিচন্দ্রন অশ্বিন।

• এশিয়ার বাইরে টেস্টে প্রথম বার ইনিংসে পাঁচ উইকেট এবং প্রথম বার ছয় নম্বরে ব্যাট করা

অশ্বিন : দু’টোর মধ্যে প্রথম অ্যাচিভমেন্টটা আমার কাছে শুধু এই ম্যাচের জন্যই নয়, এই সিরিজের জন্যই স্পেশ্যাল। আর ছয়ে ব্যাট করতে নামাটা আমার কাছে সম্পূর্ণ একটা চমক! ম্যাচের সকালে বিরাট আমাকে যে কথাটা বলেছিল সেটা আমার সত্যি ভাল লেগেছিল। বলেছিল, আমরা তোমার উপর আস্থা রাখি। চাই তুমি ছয় নম্বরে ব্যাট করো। দেখা যাক, ব্যাপারটা কী রকম কাজ করে।

আমিও দলকে কিছু ফিরিয়ে দিতে চেয়েছিলাম। দেখাতে চেয়েছিলাম ছয় নম্বরে আমি কতটা ভাল। আমি এটাও দেখাতে চেয়েছিলাম যে, আড়াইশো বলের ইনিংস খেলার ধকলের পরেও আমি কেমন বল করতেও পারি। সব মিলিয়ে সে জন্য আমি খুশি।

• টেস্ট জীবনে অলরাউন্ডার হিসেবে এই প্রথম বার ম্যান অব দ্য ম্যাচ

অশ্বিন : এর আগে টেস্টে আমি সেরার পুরস্কার পেয়েছি ব্যাটিংয়ের জন্য। কিন্তু আমি সব সময় নিজেকে অলরাউন্ডার হিসেবে মূল্য দিই। আর ব্যাটিং অর্ডারে আট নম্বরের চেয়ে ছয় নম্বরে সেঞ্চুরি করার সুযোগ তো বেশি।

• গ্যারি সোবার্স আর ইয়ান বোথামের মতো হোম-অ্যাওয়েতে একই টেস্টে সেঞ্চুরি আর ইনিংসে পাঁচ উইকেটের নজির

অশ্বিন : ব্যাপারটা সত্যি জানতাম না। তা হলে তো প্রশ্নটা শোনার আগেই আমি গর্বিত থাকতাম। বিশ্ব ক্রিকেটের দু’টো অন্যতম গ্রেটেস্ট নাম স্যর ইয়ান আর স্যার গ্যারি। তবে উপমহাদেশের বাইরে এই সাফল্য পেতে আমার পাঁচ বছর লাগল। এশিয়ার বাইরে টেস্টে এক ইনিংসে পাঁচ উইকেট নিতে আমি বরাবর চেয়েছি। তার জন্য মন দিয়ে পরিশ্রম করেছি। সত্যিই আমি এখন তৃপ্ত।

(জনবার্তা/মেহেদী হাসান)

প্রতি মুহুর্তের খবর পেতে www.jonobarta.com

LEAVE A REPLY